সন্তান লালন-পালনের দায়িত্ব কি বাবা না মায়ের?

|রূপ-কেয়ার ডেস্ক|

সন্তান লালন-পালন শুধু কি মায়েরই দায়িত্ব? যদিও সবাই এর উত্তর না দেবেন। কিন্তু পুরুষতান্ত্রিক সমাজ ব্যবস্থার বাস্তবতায় এই গুরুদায়িত্বটা ইচ্ছা করেই হোক আর অনিচ্ছা সত্ত্বেই হোক মায়ের কাছেই চলে আসে। তবে মানবাধিকারের পীঠস্থান ফ্রান্সের সরকার এই ব্যবস্থার অবসান চাইছে।

এ লক্ষ্যে সন্তান লালন-পালনের জন্য বাবাও যাতে ছুটি পায়, সে ব্যবস্থা করা হবে৷ ফ্রান্সের নারী অধিকার বিষয়ক মন্ত্রী নাজাত ভালো-বেলকাসেম জানিয়েছেন, শিগগিরই তিনি মন্ত্রীপরিষদে এমন এক বিল উত্থাপন করবেন যা পাশ হলে ভবিষ্যতে পুরুষরা সন্তান লালন-পালনের ভার তাঁদের স্ত্রী বা পার্টনারের ওপর ছেড়ে নিশ্চিন্তে অফিস করতে পারবেন না৷ সন্তানকে দেখাশোনা করতে মায়ের মতো ছুটি নিতে হবে বাবাকেও৷ ফলে মায়েরা তখনও কাজে গিয়ে আয় করার সুযোগ পাবেন৷

দেখা গেছে, সন্তানকে বেশি সময় দিতে গিয়ে ফ্রান্সের মেয়েরা ছেলেদের তুলনায় অনেক কম আয় করেন৷ চাকুরিজীবীদের মধ্যে নারীদের মোট আয় তাই মাত্র ২৭ শতাংশ, বাকি ৭৩ শতাংশই পুরুষদের৷

ফরাসি সরকার মনে করছে, পুরুষরা সন্তান লালন-পালনে সময় দেয়ার জন্য ছুটি নিলে সন্তানের প্রতি মায়ের মতোই অনুভূতি তৈরী হবে পাশাপাশি মায়েরা সেই সময় উপার্জন করে অর্থনীতিতে যথেষ্ট ভূমিকা রাখতে পারবে।

উল্লেখ্য যে বর্তমানে সন্তান লালন-পালনের জন্য ফ্রান্সের মাত্র ৩ শতাংশ পুরুষ ছুটি নেন৷ আমাদের দেশেও একক পরিবারের সংখ্যা দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে, তাতে সন্তান লালন-পালনের জন্য নারীদের পাশাপাশি পুরুষরাও যদি বাচ্চাদেরকে যথেষ্ট সময় দিতে পারে তাহলে শিশুর মানসিক বিকাশের উন্নতি হবে সেকথা নির্দ্বিধায় বলা যায়।

Check Also

শিশুর মেধা বাড়বে পাঁচ খাবারেই!

শিশুদের বয়সটা হচ্ছে শারীরিক বৃদ্ধি ও মানসিক বিকাশসাধনের সময়। এসময় সুস্থভাবে বেড়ে ওঠার জন্য শিশুর …