সারারাত ট্রেনে, স্ত্রীর পাশে দাঁড়িয়ে…

ছবিটায় একটু খেয়াল করলেই বোঝা যায় একজন সুস্বাস্থ্যবান পুরুষ দাঁড়িয়ে আছে,পাশেই সিটে একজন আপাদমস্তক পর্দাসীন নারী ঘুমিয়ে আছে।

ময়মনসিংহ টু চট্টগ্রাম,সারারাতের ট্রেন ভ্রমণ। এই ব্যাক্তি দুই পায়ে সারারাত দাঁড়িয়ে ছিল। এমন না যে সে সিট পায়নি, তিনি দাঁড়ায়ে ছিলেন কারণ তার সিটে তাঁর বউ ঘুমিয়ে ছিল।

এমন ও না যে তার বউ অসুস্থ ছিল, শুধু বউ একটু আরাম করে ঘুমাবে বলেই লোকটা সারারাত দাঁড়িয়ে ছিল। মাঝে মাঝে ট্রেনের ঝাঁকুনিতে বউ-এর ঘুম ভেঙে যায়,লোকটা হাটু গেড়ে বউ এর পাশে বসে,মাথায় হাত রেখে কানের কাছে মুখ নিয়ে বার বার জিজ্ঞেস করে কিছু খাবে না,কোন অসুবিধা হচ্ছে কিনা।

আমি বললাম ভাই আমার পাশে বসেন।উনি বললেন..

‘ভাই,আমি বসে গেলে আমার জায়গায় অন্য কেও দাঁড়িয়ে থাকবে, আমার বউ অগোছালো হয়ে ঘুমাচ্ছে, সে কমফোর্ট ফিল করবে না।’

নারীটা এখানে যতই স্বার্থপর, হৃদয়হীনা হোক না কেন পুরুষটার মহানুভবতাকে খাটো করে দেখার অবকাশ নেই। নারী নির্যাতনের হাজারো সংবাদের পাশে কোনও নারীর জন্য স্বামীর সারারাত দাঁড়িয়ে থাকাটা সৌভাগ্যই বটে। এই সম্মান,ভালোবাসা টাকা দিয়ে উপহার দেয়া যায় না। এই ভালোবাসা সব নারীর কপালে জুটেও না।

Check Also

কিরণমালা নয় এবার ঈদের পোশাকের নাম এবার ফেসবুক, মেসেঞ্জার ও থ্রিজি!

গেল ঈদে ভারতীয় টিভি চ্যানেলের নায়িকাদের নামের পোশাকের বেশ কদর ছিল। জল নূপুর, কিরণ মালা, …