৭টি কার্যকরী টিপস গ্রীষ্মকালে গোপন অঙ্গের দুর্গন্ধ দূর করার

amitumi_summer

গোপন অঙ্গে ও এর আশেপাশের স্থানে দুর্গন্ধ হওয়া কেবল নারীদের সমস্যা নয়, অসংখ্য পুরুষও এই সমস্যায় ভুগে থাকেন। বিশেষ করে গরম এলে যেন এই দুর্গন্ধের অত্যাচার আরও বাড়ে। নিজের সমস্যা তো হয়ই, পোশাকেও হয়ে যায় বাজে গন্ধ, প্রিয় মানুষটির সামনেও পড়তে হয় লজ্জায়। কী করবেন? জেনে নিন গ্রীষ্মকালে গোপন অঙ্গের দুর্গন্ধ মোকাবেলার ৭টি ভীষণ সহজ ও কার্যকর উপায়।

১) গরমের সময়টা বলাই বাহুল্য যে আমরা অনেক বেশী ঘামি। ফলে গোপন অঙ্গের স্পর্শকাতর জায়গায় ব্যাকটেরিয়ার সংক্রামন বাড়ে ও গন্ধও বাড়ে। এই অবস্থা প্রতিরোধ করতে প্রথমেই সিনথেটিক অন্তর্বাস পরা একেবারেই বাদ দিন। পাতলা সুতির অন্তর্বাস পরিধান করুন।

২) অন্তর্বাস দিনে কমপক্ষে দুবার বদল করুন এবং এক অন্তর্বাস একবারের বেশী পরবেন না। একবার পরেই ধুয়ে দিন।

৩) দিনে অন্তত ২/৩ বার গোপন অঙ্গ হালকা গরম পানি ও অ্যান্টি ব্যাকটেরিয়াল সাবান দিয়ে ধুয়ে পরিষ্কার করে নিন। পরিষ্কার করে ধুয়ে, ভালো করে মুছে তারপর পোশাক পরবেন।

৪) নিজের অন্তর্বাস ধোয়া হলে ডেটল বা স্যাভলন মেশানো পানি দিয়ে ধুয়ে নিন। তারপর চিপে রোদে শুকাতে দিন। এই অন্তর্বাস অনেকটা সময় আপনাকে ব্যাকটেরিয়ার সংক্রমন মুক্ত রাখবে। আপনি চাইলে পানিতে স্যাভলন বা ডেটল মিশিয়ে সাথে তুলো ডুবিয়ে গোপন অঙ্গের আশেপাশের এলাকা যেমন থাই ও কুঁচকি মুছে নিতে পারেন। এতেও উপকার পাবেন।

৫) বেকিং সোডা দুর্গন্ধের সমস্যা প্রতিরোধ ও দুর্গন্ধের জন্য দায়ী ইস্টের প্রকোপ দূর করতে দারুণ কার্যকর। দ্রুত গন্ধ কমায় বেকিং সোডা। ১/২ কাপ বেকিং সোডা বাথটাবের পানিতে মিশিয়ে নিন, এরপর এতে শরীর ডুবিয়ে বসে থাকুন। সেটা সম্ভব না হলে পানিতে বেকিং সোডা মিশিয়ে সেই পানি দিয়ে গোপন গন্ধ ধুয়ে নিন। ১৫/২০ মিনিট পর চাইলে আবার পরিষ্কার পানি দিয়ে ধুয়ে নিতে পারেন।

৬) নিমের পাতাও ইস্ট ইনফেকশন দূর করে গোপন অঙ্গের দুর্গন্ধ কমায়। পানিতে নিম পাতা ফুটিয়ে নিন। সেই নিম পাতা ফুটানো পানি ঠাণ্ডা করে প্রতিদিন এটা দিয়ে গোপন অঙ্গ ধুয়ে নিন।

৭) গোপন অঙ্গের দুর্গন্ধ দূর করতে প্রতিদিন অন্তত দুই কাপ টক দই খান। ফলাফলে নিজেই বিস্মিত হবেন।

সূত্র: প্রিয় লাইফ

Check Also

ঘুমের সময় মেয়েদের অন্তর্বাস পরা কি জরুরি?

ঘুমের সময় পোশাকটি কেমন হবে তা নিয়ে চিন্তিত থাকেন বেশিরভাগ নারী। কারণ আঁটসাঁট পোশাক পরলে …