ঈদে স্বাস্থ্যসচেতনদের জন্য অসাধারণ সুস্বাদু ও স্বাস্থকর ‘সবজি বিরিয়ানি’

amitumi_vegetable biriani

বিরিয়ানির নাম শুনলে জিভে জল আসে না এমন মানুষ খুঁজে পাওয়া যাবে না। কমবেশি সকলেরই বিরিয়ানির প্রতি এক ধরণের টান রয়েছে। কিন্তু বিরিয়ানি বলতেই যে শুধু মাংসের বিরিয়ানি হবে এমন কোনো কথা নেই। যারা সবজি খেতে পছন্দ করেন না তারা এই সবজি বিরিয়ানি খেয়ে দেখতে পারেন। মাংসের বিরিয়ানি থেকে কোনো অংশেই কম নয়। আর তৈরি করতে খুব কম ঝামেলা ও সময় লাগে বলে খুবই সহজে তৈরি করে নিতে পারেন এই সুস্বাদু ‘সবজি বিরিয়ানি’। চলুন তাহলে শিখে নেয়া যাক খুব সহজ রেসিপিটি।

উপকরণ:

– নিজের পছন্দের সবজি ২ কাপ (আলু, গাজর, বরবটি, মটরশুঁটি, ফুলকপি ইত্যাদি)
– আধা কাপ দই
– ১ কাপ পেঁয়াজ কুচি
– ২ টেবিল চামচ আদা বাটা
– ১ চা চামচ রসুন বাটা
– পেঁয়াজ বাটা ১ চা চামচ
– ৩/৪ টা এলাচি
– আধা চা চামচ জায়ফল
– ২/৩ টা দারুচিনি
– ৩/৪ টা লবঙ্গ
– ২ -৩ টা তেজপাতা
– তেল প্রয়োজনমতো
– লবণ স্বাদমতো
– ২ কাপ পোলাওয়ের চাল বা বাসমতী চাল
– কাঁচা মরিচ ১০/১২ টি
– আধা কাপ বেরেস্তা
– ২/৩ চা চামচ ঘি

পদ্ধতি:

– সবজির সাথে সব মশলা জাতীয় উপকরণ এবং দই ভালো করে মিশিয়ে নিন। মাংস যেভাবে মেরিনেট করেন সেভাবে মেরিনেট করবেন কিন্তু সবজি যাতে ভেঙে না যায় সেদিকে লক্ষ্য রাখবেন।
– এরপর অল্প পানি দিয়ে আধা সেদ্ধ হওয়া পর্যন্ত রান্না করে নিন। খুবই হালকা ঝোল রাখবেন এবং সবজি আধা সেদ্ধ করবেন, পুরো সেদ্ধ করবেন না এভাবে নামিয়ে রাখুন চুলা থেকে।
– একটি বড় পাতিলে তেল দিয়ে গরম করে এতে চাল ধুয়ে দিয়ে সামান্য লবণ দিয়ে নেড়ে চাল একটু ভেজে নিন। এরপর এতে পরিমাণমতো পানি দিয়ে দিন এবং চালের পানি শুকানো পর্যন্ত বেশী আঁচে রান্না করতে থাকুন।
– চাল পৌনে সেদ্ধ হয়ে এলে পাতিলের উপর থেকে খানিকটা চাল নামিয়ে তারপর রান্না করা সবজি দিয়ে তার উপরে নামিয়ে রাখা চাল দিয়ে ঢেকে নিন। এর উপরে দিন কাঁচামরিচ ও পেঁয়াজ বেরেস্তা।
– এরপর পাতিল সরাসরি চুলায় না দিয়ে নিচে একটি তাওয়া দিয়ে দিন। অর্থাৎ দমে বসিয়ে ঢাকনা দিয়ে ভালো করে ঢেকে রান্না করতে থাকুন। পুরোপুরি চাল সেদ্ধ হয়ে এলে উপরে ২/৩ চামচ ঘি ছড়িয়ে নামিয়ে ঢেকে রাখুন।
– এরপর ২ মিনিট পর গরম গরম পরিবেশন করুন সুস্বাদু ও স্বাস্থ্যকর মজাদার ‘সবজি বিরিয়ানি’।

সূত্র: www.binjalsvegkitchen.com

Check Also

মজাদার রসুন ভর্তা তৈরির রেসিপি

গরম ভাতে সুস্বাদু ভর্তার কোনো পদ হলে আর কথা নেই! গপাগপ কখন যে সাবাড় হয়ে …