পহেলা বৈশাখ স্পেশাল- বেগুনের রোস্ট

amitumi_brinjal roast

খাবারের নাম শুনে অন্যরকম লাগলেও আজকে আপনাদের সাথে এই রেসিপিটি শেয়ার করব। দারুণ মজার এই আইটেমটি চলতে পারে যেকোনো অকেশনে। বাঙালির প্রাণের উৎসব পহেলা বৈশাখ এর দিনে গরম পোলাও , ভাত কিংবা খিচুড়ির সাথে পরিবেশন করুন মজাদার বেগুনের রোস্ট । চলুন দেখে নিই এর পুরো প্রণালী।

প্রথম ধাপে যা যা লাগবে

১ টা বড় বেগুনের বড় টুকরা
জিরা গুরা
লবন স্বাদ মত

বেগুন মোটা পিস করে কেটে নিন ,এবার জিরা গুড়া লবণ দিয়ে মেখে অল্প তেলে ভেজে নিন ,হাল্কা লাল করে এক সাইড এরপর আরেক সাইড লাল করে ভেজে নিন, খুব বেশি ভাজার দরকার নেই।ভেজে একটা পাত্রে উঠিয়ে রাখুন ।

দ্বিতীয় ধাপে এবার রোস্টের জন্য যা যা লাগবে

পেয়াজ কুচি হাফ কাপ
আদা বাটা ২ চা চামচ
রসুন বাটা ২ চা চামচ
টক দই ২ টেবিল চামচ
জয়ফল ও জয়েত্রী কিসমিস বাটা ২ চা চামচ
পোস্ত দানা বাটা ১ চা চামচ
গরম মসলা গুরা ২ চা চামচ
এলাচি ৪- ৫ টি
দারুচিনি ২ স্টিক
বেরেস্তা ১ কাপ
ঘি / তেল ৪ টেবিল চামচ
লবন পরিমান মত

যেভাবে তৈরি করবেন

প্রথমে হাড়িতে ঘি / তেল দিয়ে এলাচি ৪- ৫ টি ,দারুচিনি ২ স্টিক দিন। এরপর দিন পেয়াজ কুচি। লাল করে ভাজা হলে এতে একে একে আদা বাটা, রসুন বাটা, টক দই, জয়ফল ও জয়েত্রী কিসমিস বাটা, পোস্তদানা বাটা, গরম মসলা গুরা আর লবন পরিমান মত দিয়ে মশলা কষে নিন (আমি ভুনা টাইপ করতে চেয়েছি তাই কোন দুধ না পানি দিয়ে ঝোল করিনি )।

মশলা কষে আসলেই এতে ভাজা বেগুনের পিসগুলো দিয়ে, সামান্য পানি আর কয়েকটা আস্ত কাচা মরিচ দিয়ে ধিমি আঁচে রান্না করুন ১০ মিনিট। এবার বেগুনের পিসগুলোর উপর বেরেস্তা ছড়িয়ে দিয়ে ধিমি আঁচে রান্না করুন আরও ১০ মিনিট। ব্যাস রেডি হয়ে গেলে গরম গরম মজাদার বেগুনের রোস্ট।

Check Also

মজাদার রসুন ভর্তা তৈরির রেসিপি

গরম ভাতে সুস্বাদু ভর্তার কোনো পদ হলে আর কথা নেই! গপাগপ কখন যে সাবাড় হয়ে …