ত্বকের উজ্জ্বলতা বৃদ্ধিতে সাহায্য করবে যে ৫টি ফলের রস

rupcare_5 juice for bright skin
দাগহীন উজ্জ্বল ত্বক পেতে আমরা অনেক কিছু ব্যবহার করে থাকি। বিভিন্ন ধরণের ফেসপ্যাক, পার্লারে গিয়ে ফেশিয়াল, ডে ক্রিম, নাইট ক্রিম আরও অনেক কিছুই করে থাকি। কিন্তু যত যাই ব্যবহার করিনা কেন তা হয়তো ত্বকে অল্প কিছু সময়ের জন্য উজ্জ্বলতা নিয়ে আসে, তারপর রূপচর্চা করা বন্ধ করে দিলে ত্বক আবার আগের মতোই হয়ে যায়। স্থায়ীভাবে সুন্দর উজ্জ্বল ত্বক পাওয়ার জন্য চাই স্বাস্থ্যকর খাবার এবং সুস্থ লাইফস্টাইল। কিছু জুস আছে যা নিয়মিত খাওয়াতে ত্বকের উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি পাবে ভেতর থেকে। এমন কিছু জুস নিয়ে আমাদের আজকের এই ফিচার।

১। গাজরের রস

ভিটামিন এ এবং অ্যান্টি অক্সিডেন্ট সমৃদ্ধ গাজর ত্বকের উজ্জ্বলতা ভিতর থেকে বৃদ্ধি করে থাকে। এটি সূর্যের ক্ষতিকর আল্ট্রাভায়োলেট (ইউভি) রশ্মি থেকে ত্বককে রক্ষা করে। ক্ষতিগ্রস্ত ত্বক মেরামত করে থাকে।

২। বিটের রস

আয়রন, পটাশিয়াম, নিয়াসিন, কপার, এবং ভিটামিন সি সমৃদ্ধ বিটের রসও ত্বকের উজ্জ্বলতা বৃদ্ধিতে বেশ কার্যকর। অ্যান্টি ইনফ্লামেনটরী, ফলিক অ্যাসিড এবং জিঙ্ক পাকস্থলীর সমস্যা সমাধান করে থাকে।

৩। আদার রস

আদার রস রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি করে। এর ম্যাগনেসিয়াম, পটাসিয়াম, এবং ভিটামিন বি৬ ত্বকে বলিরেখা পড়া রোধ করে। এছাড়া নিয়মিত আদার রস অনেগুলো রোগ প্রতিরোধ করে থাকে।

৪। আঙ্গুরের রস

উচ্চ অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট সমৃদ্ধ আঙ্গুরের রস ব্রণ এবং ত্বকে বলিরেখা দূর করে দেয়। প্রাচীনকাল থেকে ত্বকের উজ্জ্বলতা বৃদ্ধিতে আঙ্গুর রস বেশ কার্যকর।

৫। আম, শসা এবং পালং শাকের রস

আধা কাপ আমের কুচি, একটি শসা এবং এক মুঠো পালং শাক ব্লেন্ডারে ব্লেন্ড করে রস তৈরি করে নিন। এই রসটি ত্বকে বলিরেখা দূর করে বয়স রোধ করে। এছাড়া ব্রণ হওয়া প্রতিরোধ করে।

Check Also

কীভাবে বুঝবেন চেহারায় বয়সের ছাপ পড়ছে?

বয়স বাড়বে, সেইসঙ্গে তার ছাপও পড়বে মুখে। এর পুরোটাই খুব স্বাভাবিক একটি প্রক্রিয়া। বয়স যখন …