হৃদরোগের ঝুঁকি কমাতে প্রতি সপ্তাহে করুন এই একটি কাজ

হৃদরোগের ঝুঁকি আপনি কমাতে পারেন সঠিক খাদ্যভ্যাস, ওজন নিয়ন্ত্রণ ও ব্যায়ামের মাধ্যমে। এর পাশাপাশি প্রতি সপ্তাহে মাত্র এক ঘণ্টার একটি কাজে আপনি এই ঝুঁকি কমিয়ে আনতে পারেন ৭০ শতাংশ পর্যন্ত। কী সেই কাজ? তা হলো স্ট্রেংথ ট্রেইনিং।

অ্যারোবিক এক্সারসাইজ বা কার্ডিও হলো হাঁটা, সাইক্লিং ও সাঁতারের মতো ব্যায়াম। এসব ব্যায়ামকে কার্ডিও বলা হয় কারণ তা হৃদযন্ত্রের উপকারে আসে। কিন্তু আইওয়া স্টেট ইউনিভার্সিটির এক গবেষণা বলছে, কার্ডিও ছাড়াও স্ট্রেংথ ট্রেইনিং বেশ কাজে আসে। এই স্ট্রেংথ ট্রেইনিং সপ্তাহে মাত্র এক ঘণ্টা করলেই আপনি উপকার পাবেন।

এই গবেষণায় ১৩ হাজারের বেশি প্রাপ্তবয়স্ক মানুষের স্বাস্থ্য, হৃদযন্ত্র ও ব্যায়ামের অভ্যাসের তথ্য নেওয়া হয়। মূলত হার্ট অ্যাটাক, স্ট্রোক ও সাধারণ হৃদরোগের তথ্য নেওয়া হয়। এছাড়া এসব কারণে মৃত্যুর ঘটনার তথ্যও নেওয়া হয়।

গবেষণা থেকে দেখা যায়, যারা নিয়মিত স্ট্রেংথ ট্রেইনিং করেন, তাদের এই তিনটি স্বাস্থ্য সমস্যা কম হতে দেখা যায়। প্রতি সপ্তাহে ঘণ্টাখানেক ভারোত্তোলন করলে হার্ট অ্যাটাক বা স্ট্রোকের ঝুঁকি কমে যায় ৪০ শতাংশ থেকে ৭০ শতাংশ পর্যন্ত। গবেষক ডাক-চুল লি জানান, মানুষ মনে করে ভারোত্তোলন করতে হয় অনেকটা সময় ধরে। আসকে কিন্তু তা নয়। পাঁচ মিনিটেরও কম সময় ব্যয় করে ভারোত্তোলন করলে সেটাও কার্যকরী হবে।

গবেষক লি জানান, সপ্তাহে প্রতিদিন আধা ঘণ্টা করে কার্ডিও করার কথা বলে অনেকে। তা করলে আপনি উপকার পাবেন বটে, কিন্তু এরথেকে কম করলেও উপকার পাওয়া যাবে। দিনের পর দিন ভারোত্তোলন করার ধৈর্য থাকে না সবার। হাঁটা বা সাইক্লিং যদিও দৈনিক অভ্যাস পরিণত করা যায়, ভারোত্তোলনের অভ্যাস গড়ে তোলা তেমন সহজ নয়। তাই স্টেংথ ট্রেইনিং করতে হবে সপ্তাহে অন্তত এক ঘণ্টা। এর পাশাপাশি বাগান করা ও ভারী বাজারের ব্যাগ টানার অভ্যাস করলেও উপকার পাওয়া যায়।

Check Also

অ্যাসিডিটি ও বদহজমের সমস্যা হলে যা করবেন

বর্তমান সময়ে অ্যাসিডিটি ও বদহজমের সমস্যা নেই এমন এমন মানুষ খুব কমই আছে। আর এই …