মেহজাবীনের মুখে কী হয়েছে?

মেহজাবীন চৌধুরী নিন্ম মধ্যবিত্ত পরিবারের মেয়ে। একটি প্রতিষ্ঠানে চাকরী করেন। তার গায়ের রঙ চাপা শ্যামলা। সমস্ত মুখ জুড়ে কালো কালো দাগ। এগুলো বসন্ত ও ব্রণের দাগ! একই অফিসে চাকরী করেন অপূর্ব। তারও একটি রোগ রয়েছে। চুলকানির সমস্যা। ইলিশ, চিংড়ি মাস, বেগুন, গরুর মাংস জাতীয় খাবার খেতে পারেন না তিনি।

এ নিয়ে দুজনেই অফিসের সহকর্মীদের থেকে কথা শুনতে হয়। অনেক ঘটনার পর অপূর্ব-মেহজাবীনের মধ্যে প্রেম হয়। এরপরের গল্প অন্যরকম। এমন গল্পে ছোটপর্দার জনপ্রিয় এই দুই তারকাকে নিয়ে নাটক নির্মাণ করেছেন নির্মাতা বিইউ শুভ। চয়ন দেবের লেখা এ নাটকের নাম ‘মেঘের বাড়ি যাবো’।

চ্যানেল আই অনলাইনকে নির্মাতা শুভ বললেন, অপূর্ব-মেহজাবীনকে নিয়ে গতমাসে ‘ফার্স্ট লাভ’ নামে একটি নাটক নির্মাণ করেছিলেন। অল্পদিনে রেকর্ড পরিমাণ মানুষ কাজটি ইউটিউব থেকে দেখেন। ওই সাফল্যে অনুপ্রাণিত হয়ে এবার অপূর্ব-মেহজাবীনকে নিয়ে ‘মেঘের বাড়ি যাবো’ বানাচ্ছি।

নির্মাতা আশা করছেন, এ কাজটিও সাড়া ফেলবে। নির্মাতা বিইউ শুভ বলেন, অপূর্ব-মেহজীবন দুজনেই একেবারেই ব্যতিক্রম একটা কাজ করছে। বিশেষ করে মেহজাবীন গ্ল্যামারস লুক বেরিয়ে নতুন একটি চরিত্রে কাজ করছে। দুদিন শুটিং হয়েছে। মঙ্গলবার (১২ মার্চ) চলছে এ নাটকের শেষদিকে দৃশ্যধারণ।

নির্মাতা বিইউ শুভ জানান, আসছে পহেলা বৈশাখে ‘মেঘের বাড়ি যাবো’ নাটকটি একটি অনলাইন প্লাটফর্মে প্রচার হবে।

Check Also

সন্তানকে নিয়ে প্রথমবার ক্যামেরার সামনে সানিয়া মির্জা

বেশ কিছু দিন আগে ছেলে সন্তানের মা হয়েছেন ভারতের টেনিস তারকা সানিয়া মির্জা। এটি নতুন …