সম্পর্ক বহু গভীরে? এই ৬টি লক্ষণ থাকলে বিয়ে পর্যন্ত গড়াবে না

প্রত্যেকেই নিজের পছন্দমতো সঙ্গীর সঙ্গে একটা সুখী সম্পর্ক শুরু করার স্বপ্ন দেখেন। বিয়ের স্বপ্ন নিয়ে করা ভালোবাসার সেই সম্পর্ক শুরু করে সম্পর্কটাকে বিবাহের বন্ধনে আবদ্ধ করতে চান। কিন্তু আমাদের সমাজে এমন কিছু মানুষ আছেন, যারা বিয়ে করতে চান না। সম্পর্কে থাকবেন, অথচ বিয়ে করবেন না, এমন মানসিকতার প্রচুর মানুষ দেখা যায়। কিন্তু কীভাবে বুঝবেন আপনার সঙ্গীটি একেবারেই বিয়েতে আগ্রহী নন? কীভাবে বুঝবেন আপনার ভালোবাসার সম্পর্কটা বিয়ে পর্যন্ত গড়াবে না? এ প্রশ্নগুলোর উত্তর খোঁজতে গিয়ে অনেকেই সমস্যায় পড়েন। আপনিও যদি এ নিয়ে কোনো ধরনের সমস্যায় পড়েন; তাহলে জেনে নিন যে ছয়টি লক্ষণ বলে দেবে আপনার ভালোবাসার সম্পর্কটা বিয়ে পর্যন্ত গড়াবে না।

অংশীদার হিসাবে না দেখা

ভালোবাসা বা বিয়ে মানেই অংশীদারিত্ব। বিয়ে শুধুমাত্র একটি সম্পর্ক নয়, একটি অংশীদারিত্বও। এক জন আরেক জনের সব কিছুর অংশী হবেন। সুখ বা দুঃখকে ভাগ করে নিবেন। নিজের সব কিছুই একে অপরের সঙ্গে ভাগ করে নিবেন। কিন্তু ভালোবাসার সম্পর্কতে থাকার সময় যদি দেখেন আপনার সঙ্গী এসব কিছুই শেয়ার করছেন না; তাহলে বুঝবেন আপনার সঙ্গী একেবারেই বিয়েতে আগ্রহী নন।

জীবন পরিবর্তনের সিদ্ধান্তগুলোতে অসম্মত

আপনার সঙ্গী কি সবসময় আপনাকে বাদ দিয়েই জীবন পরিবর্তনের সিদ্ধান্ত নেন? বা আপনার সিদ্ধান্তগুলোতে অসম্মতি জানান? তাহলে সময় এসেছে সেই সঙ্গীকে ত্যাগ করার। কারণ, সেই ব্যক্তি আপনাকে নিজের সঙ্গে ভাবেনই না। তাহলে আপনার ভালোবাসার সম্পর্ক বিয়ে পর্যন্ত গড়াবে কীভাবে?

ভবিষ্যত পরিকল্পনা

বিয়ে করে সারা জীবন এক সঙ্গে থাকতে হলে অবশ্যই সঙ্গীকে নিয়ে ভবিষ্যতের পরিকল্পনা করতে হয়। কিন্তু আপনার সঙ্গী যদি কোনো পরিকল্পনায় আপনাকে না রাখেন; তহলে বুঝতে হবে তিনি আপনাকে গুরুত্ব দিচ্ছেন না। যদি আপনার সঙ্গী সব সময় আপনাকে বাদ দিয়েই ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা করেন তাহলে আপনাদের সম্পর্ক বিয়ে পর্যন্ত এগোতে নাও পারে।

সম্পর্কে ঠাট্টা-তামাশা

ভালোবাসার সম্পর্কে ঠাট্টা, তামাশা ও আনন্দ থাকবেই। তার পাশাপাশি আপনাদের সম্পর্কে কোনো বিষয় নিয়ে দৃঢ় কথা-বার্তা বলতে হতে পারে। কিন্তু সব সময় সব বিষয় যদি ঠাট্টা-তামাশা করেই উড়িয়ে দেন আপনার ভালোবাসার মানুষ; তাহলে সম্পর্ক বিয়ে পর্যন্ত নাও যেতে পারে। বিয়ের আগেই ভেঙে যেতে পারে ভালোবাসার সম্পর্ক।

পারিবারিক সমস্যা

আপনার ভালোবাসা যতোই গভীর হউক না কেন যদি পারিবারিক সমস্যা থাকে তাহলে সেই সম্পর্ক বেশি দিন ঠিকতে নাও পারে। যদি আপনার সঙ্গীর বাবা-মা, ভাই-বোন, যৌথ পরিবারের কোনো সদস্য বা পারিবারিক কোনো বন্ধুর সঙ্গে সমস্যা থাকে তাহলে ভালোবাসার সম্পর্ক অতি সহজে নষ্ট হয়ে যেতে পারে। কারণ আপনাদের সম্পর্কে পারিবারিক কোনো সমর্থন থাকবে না।

বিয়ে করতে না চাওয়া

অনেকেই বিয়ের কথায় ইতস্তত বোধ করেন। সহজে বিয়ের ব্যাপারে আলোচনা করতে পারেন না। কিন্তু কোনো ব্যক্তি যদি বিয়ের নাম শুনলেই পলায়ন করেন, তাহলে তেমন সঙ্গীকে নিয়ে বিয়ের স্বপ্ন দেখাই মূর্খতা ছাড়া আর কিছুই না।

Check Also

সুখী হতে চাইলে মোটা মেয়েকে বিয়ে করুন

সামনে যা পেলাম তাই পেটে চালান করে দিলাম, এমন মনোভাব থেকে বের হয়ে এসেছে বেশিরভাগ …