কুমারিত্ব প্রমাণে বাজারে এল কৃত্রিম রক্তের পিল


প্রথম শারীরিক মিলনের রাতে মেয়েটিকে রক্তাক্ত হতেই হবে— এ সংস্কার শুধুই তৃতীয় বিশ্বের নয়, বরং অনেক উন্নত ও উন্নয়নশীল দেশই এই ‘ট্যাবু’ বহন করে এসেছে যুগের পর যুগ। কখনো সরাসরি, কখনো ভিন্নপথে। বিভিন্ন সময়ে নানা ধর্মীয় ভাবাবেগ ও কুসংস্কারকে শিখণ্ডী করে এমন প্রথাকে ‘নিয়ম’ বলে দেগে দিয়েছে সমাজের একাংশ।

এমন নিয়মকে পুঁজি করে ব্যবসা করতে বাজারে এসেছে ‘আই ভার্জিন পিল’। অনলাইনে এক ক্লিকেই মিলছে অ্যামাজনের সাইটে। সঙ্গে রয়েছে অনেকগুলো ‘আশ্বাসবাণী’। কোনো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া নেই। প্রয়োজন পড়ে না কোনো কাটাছেঁড়ার। অজ্ঞান করারও প্রয়োজন নেই। স্রেফ এক পিলেই শরীরে জমে যাবে পরিমাণ মতো থকথকে ‘নকল’ রক্ত।

Check Also

১৪ পুরুষের সঙ্গে স্ত্রীর শারীরিক সম্পর্ক, ক্ষতিপূরণ চাইলেন স্বামী

পরকীয়ায় মেতে আছেন স্ত্রী। হঠাৎ এমন সন্দেহ হয় স্বামীর। এর জেরেই গোয়েন্দা দিয়ে খোঁজ-খবর নিলেন। …