আদালতে সাক্ষ্য চলে, মিন্নি গেল পরীক্ষার হলে


বরগুনার রিফাত শরীফ হত্যা মামলার ১০ আসামির বিরুদ্ধে সাক্ষ্যগ্রহণ চলছে বরগুনা জেলা ও দায়রা জজ আদালতে। সাক্ষ্যগ্রহণ চলাকালে পরীক্ষা থাকায় এ মামলার তিন আসামি পরীক্ষা দিতে আদালত থেকে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেন।

বরগুনা জেলা ও দায়রা জজ আদালতে মঙ্গলবার (১৪ জানুয়ারি) দুপুর দেড়টায় রিফাত হত্যা মামলার সাক্ষ্যগ্রহণ চলছিল। এ মামলায় সাক্ষ্য দিয়েছেন নিহত রিফাতের দুই চাচাসহ তিনজন। অন্যদিকে দুপুর ২টায় বরগুনার শিশু আদালতে অপ্রাপ্তবয়স্ক ১৪ আসামির বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দেন নিহত রিফাতের মা ডেইজি বেগম ও চাচাতো বোন নুসরাত জাহান অনন্যা।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, রিফাত হত্যা মামলার প্রাপ্তবয়স্ক আসামি আল কাইয়ুম ওরফে রাব্বি আকন, আয়শা সিদ্দিকা মিন্নি ও মো. সাগরের ডিগ্রি প্রথম বর্ষের পরীক্ষা চলমান। তাই সাক্ষ্যগ্রহণের একপর্যায়ে বেলা সাড়ে ১২টার দিকে আদালতের অনুমতি নিয়ে মিন্নি তার বাবার সঙ্গে বরগুনা সরকারি মহিলা কলেজ কেন্দ্রে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে যান।

এছাড়া এ মামলার অন্য দুই আসামি আল কাইয়ুম ওরফে রাব্বি আকন এবং মো. সাগরকে পুলিশের প্রিজন ভ্যানে করে বরগুনা জেলা কারাগারে নিয়ে যাওয়া হয় পরীক্ষা দেওয়াতে।

এ বিষয়ে মিন্নির বাবা মো. মোজাম্মেল হোসেন কিশোর বলেন, মিন্নির আজ পরীক্ষা আছে। বিষয়টি আদালতকে জানানো হলে আদালত মিন্নিকে পরীক্ষায় অংশগ্রহণের অনুমতি দেন।

Check Also

‘স্বামী-শাশুড়ির মদদে ভাসুরও আমাকে ধর্ষণ করে’

দিন যত যাচ্ছিল ততই জনপ্রিয়তা বাড়ছিল টিকটকখ্যাত হুগলির এক গৃহবধূর। সম্প্রতি এক ভিডিও বার্তায় তার …