করোনা ভাইরাস জীবন থেকে কেড়ে নিতে পারে ১৩ বছর!

চীনের উহান থেকে করোনা ভাইরাস বিশ্বের ২০৯টি দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে। বিশ্বব্যাপী এখন পর্যন্ত ২৮ লাখ ৫০ হাজার ৩৮৭ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। অপরদিকে মারা গেছেন ১ লাখ ৯৮ হাজার ৭৩ জন। বিশ্বব্যাপী প্রাণঘাতী করোনায় দিন দিন আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা বাড়ছেই। এখন পর্যন্ত করোনা রোধে কার্যকর কোনো ওষুধ আবিষ্কার হয়নি। এদিকে, করোনা নিয়ে নতুন তথ্য জানালো যুক্তরাজ্যের গ্লাসগো বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষক দল। করোনার প্রভাব সম্পর্কে গবেষণায় বলা হচ্ছে, প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস একজন মানুষের জীবন থেকে ১৩ বছর সময় কেড়ে নিতে পারে। করোনায় ইতালিতে যারা মারা গেছেন এবং যাদের অবস্থা সঙ্কটাপন্ন তাদের নিয়ে গবেষণা করে গ্লাসগো বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষক দল। দেশটির বিগত বছরগুলোতে ব্যক্তিদের স্বাভাবিকভাবে বেঁচে থাকা ও মৃত্যুর উপর গবেষণা করেই এই তথ্য দিয়েছে গবেষণা দলটি।

গবেষক দলটি ওয়ার্ল্ড হেলথ অর্গানাইজেশন লাইফ টেবিলের পাশাপাশি যুক্তরাজ্যের একটি বৃহৎ স্বাস্থ্যসেবা ডাটাবেজ, সেল (সিকিউর অ্যানোনিমাইজড ইনফরমেশন লিংকেজ) থেকে ডাটা ব্যবহার করে করোনার বৈশিষ্ট্য নিয়ে মানুষ কতদিন বেঁচে থাকতে পারে সে বিষয়ে গবেষণা করে।

গবেষকরা বলেন, করোনার জন্য জীবনের হারানো সময়সীমা ছেলেদের ক্ষেত্রে হতে পারে ১৩ বছর এবং মেয়েদের ১১ বছর। গবেষণায় দেখা যায়-করোনায় মৃত্যুর কারণে মানুষ তার জীবনের ১০ বছর হারিয়েছে।

গবেষণা দলটির নেতৃত্বদানকারী ডা. ডেভিড ম্যাকএলিসার বলেন, গবেষণায় আমরা খুঁজে পেয়েছি যে বছরে জীবন হারানো (ওয়াইএলএল) পুরুষ এবং নারীদের জন্য ১৩ এবং ১১ বছর ছিল। আর সেই বছরের সাথে তুলনা করেই আমরা এই গবেষণাটি করেছি।

Check Also

গরমকালের বউ, মাত্র ২০ দিনের জন্য

মুসলিম পুরুষদের শর্ত সাপেক্ষে চার স্ত্রী গ্রহণের বিধান রয়েছে ইসলাম ধর্মে। তাই বলে কেবল গ্রীষ্মকালের …