৭৭ বছরের প্রবীর মিত্রের কাছে হেরে গেলো করোনা

করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছিলেন বাংলা চলচ্চিত্রের বর্ষিয়ান অভিনেতা প্রবীর মিত্র। তবে এখন সেরে উঠেছেন ভয়ংকর এই ভাইরাস থেকে। সুস্থ হয়ে তাই ৭৭ বছর বয়সী এই অভিনেতা ফিরেছেন বাসায়।

জানা গেছে, প্রবীর মিত্র দীর্ঘদিন ধরে আর্থ্রাইটিসে ভুগছেন। হাটুতে প্রচন্ড ব্যাথা তার। সে জন্য বাসা থেকেও বের হতেন না। তবুও করোনায় আক্রান্ত হন তিনি। তবে করোনা পরীক্ষার ফল হাতে পাওয়ামাত্র দ্রুত হাসপাতালে ভর্তি করানো তাকে। ১৪ দিন চিকিৎসাধীন থাকার পর মঙ্গলবার সেগুনবাগিচার বাসায় ফিরেছেন তিনি।

তার বড় ছেলের স্ত্রী সোনিয়া ইয়াসমিন জানান, গত ২২ জুন তার শরীরে ভাইরাস শনাক্ত হয়। এরপর থেকে ছিলেন হাসপাতালে শেষ পরীক্ষায় করোনা পরীক্ষার ফল নেগেটিভ আসায় তাকে বাসায় নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

ঢাকাই চলচ্চিত্রের এক গুরুত্বপূর্ণ অভিনেতা প্রবীর মিত্র। তার দীর্ঘ ক্যারিয়ারে ‘তিতাস একটি নদীর নাম’, ‘মিন্টু আমার নাম’, ‘জয় পরাজয়’, ‘প্রতিজ্ঞা’, ‘প্রতিহিংসা’ ও ‘রঙিন নবাব সিরাজউদ্দৌলা’সহ তিনশ’রও বেশি চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন।

১৯৪৩ সালের ১৮ আগস্ট চাঁদপুরের নতুন বাজারে প্রবীর কুমার মিত্রের জন্ম হয়। তবে পৈতৃক নিবাস কেরানীগঞ্জের শাক্তায়। পুরান ঢাকায় বড় হওয়া প্রবীর মিত্র স্কুলজীবন থেকেই নাট্যচর্চায় যুক্ত হন। স্কুলজীবনে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ‘ডাকঘর’ নাটকে অভিনয় করেছিলেন। ১৯৬৯ সালে প্রয়াত এইচ আকবরের ‘জলছবি’ চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য প্রথম ক্যামেরার সামনে দাঁড়ান। পরে ওই পরিচালকের ‘জলছবি’ সিনেমার মধ্য দিয়ে বড় পর্দায় তাঁর অভিষেক হয়।

Check Also

মারা গেলেন হ্যান্ড স্যানিটাইজার থেকে লাগা আগুনে দগ্ধ ডা. রাজিব

রাজধানীর হাতিরপুলের ভাড়া বাসায় হ্যান্ড স্যানিটাইজার থেকে লাগা আগুনে দগ্ধ চিকিৎসক দম্পতির মধ্যে ডা. রাজিব …