Advertisements

শিশুর চোখ খেলো পিঁপড়ায়, হাত-পায়ে শিয়ালের কামড়

121211-2101151112 শিশুর চোখ খেলো পিঁপড়ায়, হাত-পায়ে শিয়ালের কামড়ছবিঃ সংগৃহীত

ময়মনসিংহের তারাকান্দায় অপহরণের তিনদিন পর জঙ্গলে সানজিদা আক্তার নামে এক শিশুর লাশ মিলেছে। শুক্রবার সকালে উপজেলার রামচন্দ্রপুর আকন্দবাড়ির জঙ্গল থেকে শিশুটির লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

নিহত সানজিদা উপজেলার রামচন্দ্রপুর এলাকার শাহজাহান আকন্দের মেয়ে। সে স্থানীয় একটি বিদ্যালয়ে দ্বিতীয় শ্রেণিতে পড়াশোনা করত।

নিহতের বাবা শাজাহান আকন্দ বলেন, মঙ্গলবার দুপুরে বাড়ির উঠান থেকে সানজিদা অপহৃত হয়। একটি চিরকুটে লিখে যাওয়া নম্বরে অপহরণকারীদের সঙ্গে যোগাযোগ করতে বলা হয়। কিন্তু নম্বরটি বন্ধ পাওয়া যায়। এর পরদিন বিকাশ নম্বরে ২০ হাজার টাকা পাঠাতে বলে অপহরণকারীরা। এ ঘটনায় বুধবার থানায় জিডি করা হয়। কিন্তু মেয়েকে উদ্ধার করতে পারেনি পুলিশ। টাকা না পাঠানোয় লাশ হলো আমার মেয়ে।

Advertisements

এ বিষয়ে জেলা ডিবি পুলিশের ওসি শাহ কামাল বলেন, নম্বর ট্র্যাকিং করে অপহরণকারীদের শনাক্ত করার চেষ্টা করছিলো পুলিশ। কিন্তু শুক্রবার সানজিদার লাশ মেলে জঙ্গলে। এ ঘটনায় দ্রুতই অপরাধীদের আইনের আওতায় আনা হবে।

এদিকে স্থানীয় সার্কেল এএসপি দীপক চন্দ মজুমদার বলেন, নিহতের হাত ও পায়ে শিয়ালের কামড়ের চিহ্ন রয়েছে। চোখ দুটি সম্ভবত পিঁপড়ায় খেয়ে ফেলতে পারে।

নিহতকে ধর্ষণ করা হয়েছে কি-না কিংবা কবে খুন করা হয়েছে, এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ময়নাতদন্তের পর এ বিষয়গুলো বলা যাবে। তবে, এ ঘটনায় এখনো কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি।

নিহতের বাড়িতে সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, নিহত সানজিদার মরদেহ দেখতে শাহজাহান আকন্দের বাড়িতে ভিড় করছেন হাজার হাজার মানুষ। সানজিদার মা কান্না করতে করতে বার অজ্ঞান হয়ে পড়ছেন। আর বাবা মেয়ে হারানোর শোকে কাতর। এলাকাবাসী বলছেন, এমন ঘটনা রামচন্দ্রপুর গ্রামে আগে ঘটেনি। হত্যাকারীদের কঠোর বিচার চাইছেন এলাকাবাসী।

Advertisements

Check Also

রাতের আঁধারে রূপ খোলে মাওয়া এক্সপ্রেসওয়ে

ঢাকা-মাওয়া দেশের প্রথম এক্সপ্রেসওয়ে যানবাহন চলাচলের জন্য খুলে দেওয়া হয়েছে এক বছর হল। তবে পদ্মা …